ডোনেট বাংলাদেশ পত্রিকার পবা উপজেলা প্রতিনিধি পদ থেকে “মো. রোকনুজ্জামান মানিক” কে বহিস্কার।


প্রেস বিজ্ঞপ্তি.
অথর
এনায়েত উল্লাহ জেলা সংবাদদাতা   রাজশাহী
প্রকাশিত :২৪ জুন ২০২১, ৭:৫৫ অপরাহ্ণ | পঠিত : 278 বার
ডোনেট বাংলাদেশ পত্রিকার পবা উপজেলা প্রতিনিধি পদ থেকে “মো. রোকনুজ্জামান মানিক” কে  বহিস্কার।

ডোনেট বাংলাদেশ পবা উপজেলা প্রতিনিধি-পদ থেকে মো. রোকনুজ্জামান মানিক কে সাময়িক ভাবে অব্যহতি ভাবে প্রদান করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার ২৪ জুন ডোনেট বাংলাদেশ প্রত্রিকার রাজশাহী বিভাগিয় কমিটির সিদ্ধান্ত মোতাবেক তাকে অপসারন করা হয়। পরে ডোনেট বাংলাদেশ কর্তৃপক্ষের জানতে পারেন যে রোকনুজ্জামান মানিক বিরুদ্ধে রুয়েট চত্বরে ফেনসিডিলসহ আটক হয়ে জেলে যান। সে মামলা চলমান। যে তথ্যটি তিনি গোপন করেছিলেন। এছাও তিনি বিগত ২০২০ সালে ঈদুল ফিতরের দিন নতুন বুধপাড়া এলাকার রুবেল নামের এক ব্যক্তিকে ছুরিকাঘাত করে ৪২ টি সেলাই ফেলেন। মতিহার থানাধীন মোহনপুর মহল্লার ইট ব্যবসায়ী মতিউর রহমান ও ইকবালদ্বয় তাকে আটক করে মতিহার থানা পুলিশের হাতে সোপর্দ করে। পরে এ বিষয়ে মতিহার থানায় একটি নিয়মিত মামলা হয়। সে মামলা বর্তমানে চলমান। সাংবাদিক হিসেবে রাখা অসম্ভব এর জন্য সাংবাদিকদের মান ক্ষুন্ন হচ্ছে। কাজেই ২৪ জুন ২০২১ইং তারিখ থেকে তাকে সাময়িক ভাবে বহিস্কার করা হলো। উল্লেখ্য যে, মো. রোকনুজ্জামান মানিক দীর্ঘ দিন যাবত প্রেস ক্লাব পরিপন্থী কাজ করে আসছিল এবং ক্লাবের অন্যান্য সদস্য এমনকি কার্যনির্বাহী সদস্যদের কোন তোয়াক্কা না করে নিজের খেয়াল খুশী মত প্রেসক্লাব পরিপন্থী কাজ ও একক সিদ্ধান্তে উপনীত হয়ে গঠনতন্ত্র উপেক্ষা করে আসছিলেন। এমন কার্যকলাপের জন্য অত্র ২৪/০৬/২০২১ইং তারিখ মঙ্গলবার সকাল ১০টায় প্রেসক্লাবে এক জরুরী মিটিং আয়োজন করা হয়। সদস্যেবৃন্ধ ও কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্যদহন তাকে অব্যহতির পক্ষে লিখিত সম্মতি প্রকাশ করলে মিটিং এ সকলের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী প্রেসক্লাবে তাকে অব্যহতির সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় এবং নতুন কোন ব্যক্তি নিয়োগ না হওয়া পযন্ত কাজী এনায়েত উল্লাহ রাজশাহী জেলা প্রতিনিধি উপরোক্ত পদে অধিষ্ঠিত থাকবেন। উল্লেখ্য যে, গঠনতন্ত্র অনুযায়ী প্রেসক্লাব পরিপন্থী কার্যকলাপের সহিত জড়িত থাকলে, তা যদি প্রমানিত হয়, কমিটির এক তৃতীয় অংশ সদস্যের সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত বলিয়া গন্য হইবে। এর আগে প্রেসক্লাবের সকল সদস্যদের মিটিং এ আসার জন্য আহব্বান করা হলেও রহস্যজনক কারণে তিনি অনুপস্থিত থাকেন। রাজশাহী জেলা সভাপতি এনায়েত উল্লাহ সহ কার্যনির্বাহী সদস্য সহ সদস্যদের নিয়ে জরুরী ভিত্তিতে এক বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।







No Comments

আরও পড়ুন